চট্টগ্রামে বাড়ছে শব্দ দূষণের মাত্রা

চট্টগ্রাম প্রতিনিধিচট্টগ্রাম প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ৩:২০ অপরাহ্ণ, ১৫/০৯/২০২১

চট্টগ্রামে প্রতিনিয়ত বাড়ছে শব্দ দূষণের মাত্রা। শব্দ দূষণের শাস্তি হিসেবে অর্থদণ্ড ও কারাদণ্ডের বিধান থাকলেও নিয়ম নীতির তোয়াক্কা না করেই হাসপাতাল, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও আবাসিক এলাকাসহ সবখানে চলছে শব্দ দূষণ।

‘নীরব এলাকা’ ঘোষিত চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও নগরীর জামালখানে শব্দ দূষণ পেয়েছে পরিবেশ অধিদপ্তর। এই এলাকায় শব্দের মাত্রা পাওয়া গেছে ৭৯ দশমিক ৫ ডেসিবল। গত ২২ অগাস্ট নগরীর ৩০টি স্পটে শব্দের মাত্রা পরীক্ষা করে ‘নীরব এলাকা’ শ্রেণিভুক্ত ১৪টি স্পটে শব্দের মাত্রা পওয়া গেছে ৬৭ দশমিক ৬ থেকে ৮০ দশমিক ৫ ডেসিবল পর্যন্ত।

অথচ শব্দ দূষণ নিয়ন্ত্রণ বিধিমালা অনুযায়ী এসব এলাকায় শব্দের গ্রহণযোগ্য মাত্রা হওয়ার কথা সর্বোচ্চ ৪৫ ডেসিবল। চিকিৎসকরা বলেছেন এ ধরনের শব্দ দূষণ জনস্বাস্থ্যের জন্য চরম হুমকি।

চিকিৎসকরা বলছেন, শব্দ দূষণের ফলে মানবদেহে নানা ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে।এমনকি সেটার প্রভাব পড়তে পারে মায়ের গর্ভে থাকা শিশুদেরও। অতিরিক্ত শব্দ দূষণের কারণে মানুষ অনেক সময় স্থায়ীভাবে শ্রবণ শক্তি হারিয়ে ফেলে। যেটা চিকিৎসা করেও আর ফিরিয়ে আনা যায় না। এছাড়া রক্তচাপ, অস্থিরতা, নিদ্রাহীনতা ও মানসিক দুশ্চিন্তার মতো রোগও শব্দ দূষণের কারণে হয়ে থাকে।

আন্দরকিল্লা জেমিসন রেডক্রিসেন্ট হাসপাতাল এলাকায় ৭৫ দশমিক ৫, পাঁচলাইশ সার্জিস্কোপ হাসাপাতাল, লালখান বাজার মমতা ক্লিনিকের কাছে ৭৬ দশমিক ৫ এবং আগ্রাবাদ মা ও শিশু হাসপাতালের সামনে পাওয়া গেছে ৬৭ দশমিক ৬ ডেসিবল।

জরিপে বাণিজ্যিক এলাকার ছয়টি স্পটের মধ্যে নগরীর জিইসি মোড়ে শব্দের সর্বোচ্চ মাত্রা ছিল ৯৭ দশমিক ৫ ডেসিবল আর সর্বনিম্ন ছিল অক্সিজেন মোড়ে ৭৭ দশমিক ৫০ ডেসিবল।

Nagad

এছাড়া সিইপিজেড মোড়ে ৮৯ দশমিক ৫, আগ্রাবাদ মোড়ে ৮৮, একে খান মোড়ে ৮৬ দশমিক ৫, বহদ্দারহাট মোড়ে ৮৪ দশমিক ৫ ও অক্সিজেন মোড়ে ৭৭ দশমিক ৫ ডেসিবল মাত্রার শব্দদূষণ পেয়েছে পরিবেশ অধিদপ্তর।

পরিবেশ আইনে যেসব এলাকায় আবাসিক ভবনের পাশাপাশি বাণিজ্যিক এবং শিল্প প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেছে সেগুলোকে ‘মিশ্র এলাকা’ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। এ ধরনের দুটি এলাকার মধ্যে নগরীর মুরাদপুর ও মেহেদীবাগ এলাকায় শব্দের মাত্রা নির্ণয় করা হয়েছে যথাক্রমে ৬৬ দশমিক ৫ ও ৭৯ দশমিক ৫ ডেসিবল করে।

শব্দ দূষণ নিয়ন্ত্রণ আইনে সকাল ৬টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত আবাসিক এলাকায় ৫০ ডেসিবল, মিশ্র এলাকায় ৬০ আর বাণিজ্যিক এলাকায় ৭০ ডেসিবল শব্দের মাত্রা নির্ধারণ করা আছে।

 

সারাদিন/১৫সেপ্টেম্বর/এএইচ