নাটোরে ১১ দোকানে ডাকাতির ঘটনায় ৫ ডাকাত গ্রেপ্তার

নাটোর জেলা প্রতিনিধিঃনাটোর জেলা প্রতিনিধিঃ
প্রকাশিত: ১১:০৩ অপরাহ্ণ, ০৩/০৫/২০২১

নাটোরের বাগাতিপাড়ায় ১১টি দোকানে ডাকাতির ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ৫ জন আন্তঃজেলা ডাকাতদলের সদস্যকে গ্রেফতার ও ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত ট্রাক উদ্ধার করেছে পুলিশ। এই ডাকাতির ঘটনা স্বীকার করে ২ জন আদালতে স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দী দিয়েছে।

সোমবার (৩ মে) আজ দুপুরে নাটোরের পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা এসব তথ্য জানান।

গ্রেপ্তারকৃতরা ডাকাতরা হলেন, বগুড়া জেলার দুপচাচিয়া উপজেলার ছোট বেড়াগাঁও গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে আব্দুর রহমান ৩৮, নওগাঁ জেলা সদরের বিল ভাবনীপুর গ্রামের মৃত গণি মণ্ডলের ছেলে শাহজাহান মন্ডল৩৮,সারাইল গ্রামের মৃত তমিজ মোল্লার ছেলে নাসের -৫৫ রাজশাহী জেলার বাঘা উপজেলার ধন্দহ গ্রামের গোলজার হোসেনের ছেলে সেলিম-২২ এবং বাগমারা উপজেলার ফুলপুর গ্রামের আমিরুল ইসলামের ছেরে শাহীন আলম-২৭।

পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা জানান, গত ২১ জানুয়ারি বাগাতিপাড়া উপজেলার তমালতলা বাজারে দুইজন নৈশ প্রহরীকে বেধে রেখে ১১টি দোকানে ডাকাতি সংঘটিত হয়। এ ঘটনায় অজ্ঞাতনামা ১০/১৫জনকে অভিযুক্ত করে একটি মামলা দায়ের করা হয়। এরপর পুলিশ তদন্তে নামে। এরপর তথ্য প্রযুক্তির সহায়তা রাহশাহী ও নাটোর জেলা কারাগার থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে নওগাঁ জেলার শিকারপুর ইউনিয়নের শুকুরের মোড় থেকে আব্দুর রহমান এবং বিল ভবানীপুর গ্রাম থেকে শাহাজাহান মণ্ডলকে গ্রেফতার করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে তারা

ডাকাতির ঘটনা স্বীকার করে গ্রেপ্তারকৃত আসামীদের স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে গত রাতে রাজশাহী শহরেরর পঞ্চবটি এলাকা থেকে নাসেরকে এবং ফুলপুর নিজ বাড়ী থেকে শাহীন আলমকে এবং নিজ বাড়ী হতে সেলিমকে গ্রেফতার করা হয়। এ ছাড়া নওগাঁ জেলার হাতিমারর বিল হতে ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত একটি ৩টনি ট্রাক উদ্ধার করে। গ্রেফতারকৃত ডাকাতরা জানায়, ১২ জন মিলে তমালতলা বাজারে ডাকাতি করে ডাকাতির মালামাল বিক্রি করে তারা ১০ হাজার টাকা করে ভাগ পেয়েছে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ তারেক জুবায়ের , বড়াইগ্রাম সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার খায়রুল ইসলামসহ পুলিশ কর্মকর্তা বৃন্দ।

Nagad