আইপিএলে শীর্ষে ধোনির চেন্নাই

সারাদিন ডেস্কসারাদিন ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:১৩ পূর্বাহ্ণ, ২৯/০৪/২০২১

আইপিএলের ১৪তম আসরে চেন্নাই সুপার কিংসের শুরু হয়েছিল বড় হার দিয়ে। এখন দুরন্ত ফর্মে রয়েছে দলটি। বুধবার সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে উড়িয়ে লিগ টেবিলের শীর্ষে উঠে এসেছে ধোনিরা। ৬ ম্যাচে পঞ্চম জয় এটি চেন্নাইয়ের, ১০ পয়েন্ট। অন্য দিকে সমান ম্যাচে পঞ্চম হার হায়দরাবাদের। পয়েন্ট মাত্র দুই, অবস্থান তলানিতে। তাতে কোহলীর দল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুকে টপকে শীর্ষে ফিরলো ধোনির চেন্নাই।

বুধবার (২৮ এপ্রিল) ডেভিড ওয়ার্নারদের ৭ উইকেটে হারিয়ে টানা পঞ্চম জয় তুলে নিয়েছে তিনবারের চ্যাম্পিয়নরা।

১৭২ রানের টার্গেটে নেমে রুতুরাজ গায়কোয়াড় ও ফাফ ডু প্লেসির ওপেনিং জুটির শতরান জয়ের পথ সহজ করে দেয়। ১৩ ওভারে ১২৯ রানের ওপেনিং জুটি গড়েন তারা। ৪৪ বলে ১২ বাউন্ডারিতে ৭৫ রান করে রিতুরাজ রশিদ খানের শিকার হলে ভাঙে এই জুটি।

এরপর ১৫তম ওভারে টানা দুই বলে মঈন আলি (৮ বলে ১৫) আর হাফসেঞ্চুরিয়ান ফাফ ডু প্লেসিকে (৩৮ বলে ৬ চার, এক ছক্কায় ৫৬) সাজঘরের পথ দেখান আফগান লেগস্পিনার রশিদ খান।

১৯ রানে চেন্নাইয়ের তিন উইকেট নিয়ে ছন্দপতন ঘটায় হায়দরাবাদ। তবে তা সহজ জয়ে বাধা হতে পারেনি। সুরেশ রায়না ও রবীন্দ্র জাদেজার ২৫ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটিতে ১৮.৩ ওভারে ৩ উইকেটে ১৭৩ রান করে তিনবারের চ্যাম্পিয়নরা।

জাদেজা ৬ বলে ৭ আর রায়না ১৫ বলে ১৭ রানে অপরাজিত থাকেন। চেন্নাইয়ের পতন হওয়া তিনটি উইকেটই ৩৬ রান খরচায় নেন রশিদ খান।

Nagad

এর আগে দিল্লি ক্যাপিটালসের বিপক্ষে দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের ধারাবাহিকতায় আবারও জ্বলে উঠলেন হায়দরাবাদের ব্যাটসম্যান কেন উইলিয়ামসন। চেন্নাইয়ের বিপক্ষে ওয়ার্নার ও মনিশ পান্ডের হাফ সেঞ্চুরিতে ৩ উইকেট হারিয়ে ১৭১ রানের পুঁজি পায় হায়দরাবাদ।

দিল্লির অরুণ জেটলি স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় হায়দরাবাদ। দলীয় ২২ রানে জনি বেয়ারস্টো (৭) আউট হওয়ার পর ওয়ার্নার ও মনিশ শতাধিক রানের জুটি গড়েন। যদিও রানের গতি তেমন ছিল না। ৫০ বলে হাফ সেঞ্চুরি করেন ওয়ার্নার, তার আগে ৩৫ বলে ফিফটি উদযাপন করেন মনিশ।

১৮তম ওভারে ওয়ার্নারকে ফিরিয়ে ১০৬ রানের জুটি ভাঙেন লুঙ্গি এনগিডি। একই ওভারে দক্ষিণ আফ্রিকান পেসার ফেরান ইনিংস সেরা পারফর্মার মনিশকেও। ৫৫ বলে ৩ চার ও ২ ছয়ে ৫৭ রান করেন ওয়ার্নার। আর মনিশ ৪৬ বলে ৫ চার ও ১ ছয়ে ৬১ রান করেন।

এরপর শেষ ১৩ বলে স্কোরবোর্ডে ৩৭ রান যোগ করেন উইলিয়ামসন। কেদার যাদব ছিলেন অন্য প্রান্তে। কিউই ব্যাটসম্যান ১৯তম ওভারে তিন চার ও একটি ছয় হাঁকান, আসে ২০ রান। শেষ দুই বলে কেদার একটি চার ও ছয় মারেন। ১০ বলে ২৬ রানে উইলিয়ামসন আর কেদার ৪ বল খেলে ১২ রানে অপরাজিত ছিলেন।

চেন্নাই বোলারদের মধ্যে ২ উইকেট নেয়া পেসার লুঙ্গি এনগিডি ৪ ওভারে খরচ করেন ৩৫ রান।