লকডাউনে স্বাস্থ্যবিধি না মানায় নওগাঁয় ৩৯মামলা

নঁওগা প্রতিনিধি:নঁওগা প্রতিনিধি:
প্রকাশিত: ২:১৪ অপরাহ্ণ, ১৭/০৪/২০২১

নওগাঁয় করোনাভাইরাসের ভয়াবহ সংক্রমণ রোধে সর্বাত্মক লকডাউনের চতুর্থ দিন শনিবার পর্যন্ত স্বাস্থ্যবিধিসহ করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সরকার ঘোষিত বিভিন্ন বিধি নিষেধ অমান্য করার কারণে জেলায় ভ্রাম্যমান আদালতে মোট ৩৯টি মামলায় ২০৯ ব্যক্তির বিরুদ্ধে ৪১ হাজার ৭শ ৯০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

নওগাঁর অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট রাজিয়া সুলতানা জানিয়েছেন, জেলা করোনা প্রতিরোধে কঠোরভাবে লকডাউন মানতে সাধারণ মানুষকে বাধ্য করতে জেলা প্রশাসক মোঃ হারুন-অর-রশিদের নির্দেশে এসব ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করা হচ্ছে। অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট জানিয়েছেন, মাস্ক না পড়া, সামাজিক দূরত্ব না মানা, সরকার ঘোষিত যেসব দোকানপাট বন্ধ রাখার কথা সেগুলো খুলে রাখাসহ বিভিন্ন বিধিনিষেধ না মানার কারণে এসব মামলা এবং জরিমানা করা হয়েছে।

তিনি জানান, লক ডাউনের প্রথম দিনে ১৪ এপ্রিল বুধবার জেলায় ১টি মামলায় ২ জনের মোট ৪০০ টাকা জরিমানা করা হয়। দ্বিতীয় দিন ১৫ এপ্রিল বৃহস্পতিবার জেলায় ১৩টি মামলায় মোট ৭১ জন ব্যক্তির বিরুদ্ধে ১৬ হাজার ৭শ টাকা জরিমানা করা হয়। তৃতীয় দিন শুক্রবার ১৬ এপ্রিল জেলায় ১৬টি মামলায় মোট ৮৭ জন ব্যক্তির বিরুদ্ধে ১৭ হাজার ৯শ ৪০ টাকা এবং চতুর্থ দিন ১৭ এপ্রিল শনিবার ৯টি মামলায় মোট ৪৯ জন ব্যক্তির বিরুদ্ধে ৬ হাজার ৭শ ৫০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

রাজিয়া সুলতানা বলেন, লকডাউনের জনসমাগম নিয়ন্ত্রণের জন্য প্রশাসন সর্বাত্মক চেষ্টা করছে। স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে জেলা প্রশাসকের নির্দেশে জেলায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের ১৬টি দল কাজ করছে। তিনি বলেন, মানুষ যদি সচেতন না হয়, তাহলে শতভাগ স্বাস্থ্যবিধির সাফল্য আসবে না। একজনকে অর্থদণ্ড দেওয়ার মানে তাঁর আশপাশের মানুষ যেন আরও সচেতন হোন।