মহিপুরে ষাটোর্ধ্ব এক বৃদ্ধের বিরুদ্ধে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ

মহিপুরের ডালবুগঞ্জে ষাটোর্ধ্ব এক বৃদ্ধের বিরুদ্ধে একই গ্রামের স্বামী পরিত্যক্তা এক নারীর ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনাস্থলে গিয়ে যানা যায় ডালবুগঞ্জ ইউনিয়নের সুরডুগি গ্রামের স্বামী পরিত্যক্তা নারীকে দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন ধরনের কুপ্রস্তাব এবং বিভিন্ন মাধ্যমে বিবাহের প্রস্তাব দিয়ে আসছিলো একই গ্রামের ষাটোর্ধ্ব বৃদ্ধ সিদ্দিক মৃধার বিরুদ্ধে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত ১৩ তারিখ রাত আনুমানিক ২ টার দিকে ঐ নারীর ঘড়ের টিনের বেড়া ভেঙ্গে ঘড়ে ঢুকে তাকে একা পেয়ে ধর্ষণ চেষ্টা চালায় ঐ বৃদ্ধ একপর্যায়ে ঐ নারীর ডাক চিৎকার দিলে ঘড়ে থাকা গরু বিক্রির ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকা নিয়ে পালিয়ে যায় বৃদ্ধ সিদ্দিক মৃধা ।

এব্যাপারে স্থানীয় ইদ্রিস খান বলেন, আমার কাছে ছিদ্দিক মৃধা এই নারীকে বিবাহ করবে বলে জানান। এবিষয় আরেক স্থানীয় নজরুল বয়াতি জানান এক বৃদ্ধ লোকটা চরিত্রহীন এটা গ্রামের সকলের জানা ।

১৪ এপ্রিল ঐ নারী বিষয়টি মহিপুর থানায় অবগত করলে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেনমহিপুর থানার এস আই সাইদুর রহমান।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত সিদ্দিক মৃধা অভিযোগ অস্বীকার করে এ প্রতিবেদককে বলেন, এগুলো তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র, তিনি ডালবুগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্রপ্রার্থী “ঘোড়া” মার্কার সমর্থন করার কারণে স্থানীয় কিছু জনপ্রতিনিধি তার বিরুদ্ধে এসব ষড়যন্ত্র করছে।

এবিষয়ে মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: মনিরুজ্জামান গণমাধ্যমকে জানান, বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখছি সত্যতা পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Nagad

সারাদিন/১৬ এপ্রিল/ আরএস