নওগাঁর মান্দায় আত্রাই নদী দখলমুক্ত করতে প্রশাসনের অভিযান

নওগাঁ সংবাদদাতানওগাঁ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ২:২৫ অপরাহ্ণ, ১৮/০১/২০২০

নওগাঁর মান্দায় আত্রাই নদী দখলমুক্ত করতে উচ্ছেদ অভিযান শুরু করেছে স্থানীয় প্রশাসন। ইতিমধ্যে নদীর বেশকিছু ঘের থেকে জাল জব্দ করে পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। গত বুধবার থেকে শুরু হওয়া এ অভিযানে অনেক ঘের থেকে গাছের কাটা ডালপালা ও বাঁশের বেড়া অপসারণ করেছে প্রশাসন।

সংশ্লিষ্ট সুত্র জানায়, চলতি মৌসুমে অবৈধভাবে আত্রাই নদী দখল করে অর্ধশতাধিক মৎস্যের তৈরি করে কিছু অসাধু ব্যক্তি। মৎস্য ঘেরের নামে গাছের কাটা ডালপালা নামিয়ে ও বাঁশের বেড়া দিয়ে নদীতে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করা হয়। সম্প্রতি উপজেলা আইন-শৃঙ্খলা সভার সিদ্ধান্তের পর ঘেরগুলো থেকে গাছের ডালপালা ও বাঁশের বেড়া সরিয়ে নেয়ার জন্য নদী এলাকায় মাইকিং করে উপজেলা মৎস্য দপ্তর।

কিন্তু মৎস্য দপ্তরের নির্দেশকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে এসব ঘেরে জাল নামিয়ে মাছ শিকার শুরু করেন দখলদাররা। বিষয়টি নজরে আসার পর গত বুধবার থেকে নদী দখলমুক্ত করতে উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়। ইতোমধ্যে কয়েকটি ঘের থেকে ২ লক্ষাধিক টাকার জাল জব্দ করে পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। একই সঙ্গে অপসারণ করা হয়েছে ঘের তৈরিতে ব্যবহৃত গাছের ডালপালা।

উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা গোলাম মেহেদী হাসান জানান, ‘নির্দেশনা অমান্য করে ঘেরে জাল নামিয়ে মাছ শিকারের বিষয়টি নজরে আসার পর উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়। অনেক ঘের থেকে জাল জব্দ করে পুড়িয়ে দেয়াসহ কাটা অপসারণ করা হয়েছে। নদীকে দখলমুক্ত করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।’

উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল হালিম বলেন, নদীতে কাটা কিংবা বাঁধ দিয়ে পানির স্বাভাবিক প্রবাহে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করা হলে কঠোর আইনি পদক্ষেপ নেয়া হবে। ভবিষ্যতে কেউ যেন নদী দখল করে ঘের তৈরি করতে না পারে এ বিষয়ে প্রশাসন তৎপর রয়েছে। নদী দখলমুক্ত করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলেও জানান তিনি।

উল্লেখ্য, আত্রাই নদী দখল করে ঘের তৈরি ও মাছ শিকারের বিষয়ে গণ্য-মাধ্যমে সংবাদ প্রকাশের উচ্ছেদ অভিযান শুরু করে উপজেলা প্রশাসন।

সারাদিন/১৮ জানুয়ারি/ আরটিএস