ইরানের বিক্ষোভ থেকে ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত আটক

নিজস্ব প্রতিবেদকনিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ৩:৫৭ অপরাহ্ণ, ১২/০১/২০২০

ভুল করে ইউক্রেনের যাত্রীবাহী বিমান ভূপাতিত করায় দুঃখ প্রকাশ করেছে ইরান। এতে ফুসে উঠেছে ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলী খামেনির বিরোধীরা। সেখান থেকে যুক্তরাজ্যের রাষ্ট্রদূতকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত রব ম্যাকায়ারকে গ্রেপ্তারের তিন ঘণ্টা পর ছেড়ে দেওয়া হয় বলে বিবিসি জানিয়েছে। যুক্তরাজ্য এ ঘটনাকে ‘আন্তর্জাতিক আইনের চরম লঙ্ঘন’ বলে বর্ণনা করেছে।

তেহরানভিত্তিক বার্তা সংস্থা তাসনিমের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, সরকারবিরোধী বিক্ষোভ উসকে দেওয়ায় ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত ম্যাকায়ারকে তেহরানের আমির কবির বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। বিক্ষোভে অংশ নেওয়াদের মধ্যে শিক্ষার্থীরা বেশি ছিল।

টুইটারের ভিডিওতে দেখা গেছে তারা এভাবে স্লোগান দিচ্ছেন, ‘কমান্ডার-ইন-চিফ (খামেনি) পদত্যাগ করো, পদত্যাগ করো।’

ইরাকে মার্কিন হামলায় ইরানি জেনারেল কাসেম সোলেইমানির হত্যার বদলা নিতে মুখিয়ে আছে ইরান। এর ভেতর ওই বিমানটি বিধ্বস্ত হলে ১৭৬ জন প্রাণ হারান।

তেহরানে অবস্থিত ইউক্রেন দূতাবাস প্রথম দাবি করে, বিমানের ইঞ্জিন বিকল হয়ে যাবার কারণেই এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। এর সাথে ‘সন্ত্রাসী’ কাজের কোনো সম্পর্ক নেই।

কিন্তু মার্কিন গণমাধ্যম দাবি করে ইরান ভুল করে ওই কাজ করেছে। এক পর্যায়ে মার্কিন এবং কানাডার গোয়েন্দারা বিভিন্ন তথ্য হাজির করলে আরও বিপাকে পড়ে যায় দেশটি।

অবশেষে শনিবার তারা বিবৃতিতে বলে, ইরানের বিপ্লবী গার্ডসের কাছে স্পর্শকাতর একটি এলাকা দিয়ে বিমানটি উড়ে যাওয়ার সময় ‘মানবীয় ভুলের’ কারণে ভূপাতিত করা হয়।

সারাদিন/১২জানুয়ারি/টিআর