নাটকীয় জয়ে সমতায় ফিরল ইংল্যান্ড

সারাদিন ডেস্কসারাদিন ডেস্ক
প্রকাশিত: ১:২৩ অপরাহ্ণ, ১৪/০৯/২০২০

অস্ট্রেলীয়ার ব্যাটিং দলের ব্যর্থতায় সহজ জয় তুলে নিয়েছে ইংল্যান্ড। রোববার (১৩ সেপ্টেম্বর) ৩২ বছর বয়সী লেগ স্পিনার আদিল রশিদের কাছে বিধ্বস্ত হয়ে যায় ইংলিশ দল। রশিদের সঙ্গ দিয়েছেন পেস বোলার টম কারান। ম্যানচেস্টারে দ্বিতীয় দিবা-রাত্রির ম্যাচে টসজয়ী ইংল্যান্ড ব্যাট করতে নেমে বিপদে পড়ে গিয়েছিল। ২৯ রানে ২ উইকেট হারানোর মধ্য দিয়ে তাদের বিপর্যয়ের শুরু। ইনিংস সর্বোচ্চ ৪২ রান করে অধিনায়ক এউইন মরগান (৪২) আউট হন দলকে ১১৭/৫-এ রেখে।

অপরদিকে ঠিক উল্টোটাই ঘটেছে অস্ট্রেলীয় দলে। ১৪৪ রানে তৃতীয় উইকেটের পতন ঘটে অসিদের। তৃতীয় উইকেট জুটিতে অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ ও মার্নাস লাবুশানের ১০৭ রানের জুটি স্বপ্ন দেখায় অস্ট্রেলিয়াকে। ধারণা করা হচ্ছিল, সহজ লক্ষ্যের দিকে ভালোভাবে এগোচ্ছে অস্ট্রেলিয়া। কিন্তু হঠাৎই ভয়াবহ ব্যাটিং ধস দেখা যায়। শেষ ৬৩ রানে ৭ উইকেট হারিয়ে ম্যাচ থেকেই ছিটকে যায় দলটি। ১০৫ বলে ৮ চার ও একটি ছক্কায় ৭৩ রান করে ওকসের বলে বোল্ড হন ফিঞ্চ। ওকসের বলে ব্যক্তিগত ৪৮ রানে আউট হন লাবুশানে।

এই দুই ব্যাটসম্যান সাজঘরে ফেরার পর অসিদের আর কেউ উইকেটে থিতু হতে পারেননি। উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান অ্যালেক্স ক্যারির ৩৬ রানই ছিল উল্লেখ করার মতো। বাকিরা সব দ্রুত আসা-যাওয়ার মধ্যেই ছিলেন। ইংলিশ বোলারদের মধ্যে ওকস, আর্চার ও স্যাম কারান ৩টি করে উইকেট লাভ করেন। আদিল রশিদ পান একটি উইকেট। ইংলিশ বোলারদের তোপের মুখে পড়ে ৪৮.৪ ওভারে ২০৭ রানে গুটিয়ে যান সফরকারীরা। ফল ২৪ রানের জয় পায় ইংল্যান্ড। এ জয়ে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজে ১-১ ব্যবধানে সমতায় ফিরল এউইন মরগানের দল।

এর আগে ব্যাটিংয়ে ভুগেছে ইংল্যান্ড। দলটি ১৪৯ রান যোগ করতে হারিয়ে ফেলে ৮ উইকেট। তবে আদিল রশিদ ও টম কারেনের দৃঢ়তায় দুই শ পেরোনো স্কোর গড়ে ইংলিশরা। নবম উইকেটে এই দুজন যোগ করেন ৭৬ রান। টম কারেন ৩৭ ও রশিদ অপরাজিত ৩৫ রান করেন।

সর্বোচ্চ ৪২ রান আসে অধিনায়ক ওয়েন মরগানের ব্যাট থেকে। জো রুটের ব্যাট থেকে আসে ৩৯ রান। অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে অ্যাডাম জাম্পা সর্বাধিক ৩ উইকেট নেন। ২ উইকেট নিয়েছেন মিচেল স্টার্ক। ম্যাচসেরা হয়েছেন ইংল্যান্ডের জোফরা আর্চার। বুধবার একই ভেন্যুতে তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডেতে মুখোমুখি হবে দুই দল। ম্যাচটি এখন অঘোষিত ফাইনাল।

সারাদিন/১৪সেপ্টেম্বর/এএইচ