যুক্তরাষ্ট্র-উত্তর কোরিয়া সংলাপ প্রক্রিয়ায় ভাটা!

নিউজ ডেস্কনিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:২৪ পূর্বাহ্ণ, ১৮/১২/২০১৯

এই বছরের বাকি ১৩দিনের মধ্যে ওয়াশিংটন ও পিয়ংইয়ংয়ের মধ্যকার আলোচনা প্রক্রিয়া না হলে উত্তর কোরিয়া সংলাপ প্রক্রিয়া বন্ধ করে দিতে পারে। আর সেই সংলাপ যদি উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি না হয় তবে এই প্রক্রিয়ায় ভাটা পড়তে পারে। আর একথা জানিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার ঐক্য বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

দক্ষিণ কোরিয়ার ওই মন্ত্রণালয় মঙ্গলবার (১৭ ডিসেম্বর) এক বিবৃতিতে এ কথা জানিয়েছে। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন নতুন ইংরেজি বছরের ভাষণে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সংলাপ প্রক্রিয়া যে বাতিল করে দেবেন না, তার কোনো গ্যারান্টি নেই।

বিবৃতিতে বলা হয়, ২০১৯ সালে উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্কে যে উত্তেজনা বিরাজ করেছে তাতে কোরীয় উপদ্বীপকে পরমাণু অস্ত্রমুক্ত করার প্রচেষ্টার ভবিষ্যত অনেকটা অস্পষ্ট হয়ে পড়েছে।

দক্ষিণ কোরিয়া বলেছে, আলোচনার ব্যাপারে উত্তর কোরিয়া যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে নমনীয় নীতি আশা করছে এবং চলতি বছরের শেষ নাগাদ যুক্তরাষ্ট্রের মুখ থেকে নতুন কোনো প্রস্তাব শুনতে চাচ্ছে। এ পর্যন্ত মার্কিন সরকার যেসব প্রস্তাব দিয়েছে তা পিয়ংইয়ংয়ের মনোপুত হয়নি বলে দক্ষিণ কোরিয়ার ঐক্য বিষয়ক মন্ত্রণালয় জানিয়েছে।

উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন ও মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গত ২০ মাসে তিনবার বৈঠকে মিলিত হলেও এসব বৈঠক থেকে ফটোসেশন ছাড়া আর কোনো ফল বেরিয়ে আসেনি। যুক্তরাষ্ট্র আগে উত্তর কোরিয়ার সব পরমাণু অস্ত্রের ধ্বংস চাইলেও পিয়ংইয়ং বলেছে, আগে দেশটির ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞা পুরোপুরি প্রত্যাহার করতে হবে।

আর গত শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের বিশেষ দূত স্টিফেন বিয়েগান উত্তর কোরিয়াকে আলোচনায় আসার আহ্বান জানিয়েছেন। উত্তর কোরিয়া সদ্য নতুন ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করার পর স্টিফেন বিয়েগান এই আহ্বান করলেন।

Nagad

গত শুক্রবারেই সোহে স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ কেন্দ্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ পরীক্ষা সম্পন্নের দাবি করেছে উত্তর কোরিয়া। সূত্র: রয়টার্স

উত্তর কোরিয়া বিষয়ক এই মার্কিন দূত বলেন, আমরা এখানে আছি। আসুন আমরা আমাদের কাজ সম্পন্ন করি।

সারাদিন/১৮ডিসেম্বর/টিআর