শাজাহান খানকে আমি আওয়ামী লীগ নেতা হিসাবে মনেই করি না: নিক্সন চৌধুরী

নিজস্ব প্রতিনিধিনিজস্ব প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ১১:১১ পূর্বাহ্ণ, ১৩/১২/২০১৯

সংসদ সদস্য মজিবুর রহমান নিক্সন চৌধুরী বলেন, প্রাক্তন নৌমন্ত্রী ও সরকার দলীয় সংসদ সদস্য শাজাহান খানকে আমি আওয়ামী লীগ নেতা হিসাবে মনেই করি না। আমি এখনও উনাকে জাসদের নেতা মনে করি। আমাকে ফরিদপুর-৪ আসনের জনগণ বড় স্বপ্ন নিয়ে ভোট দিয়েছে। তাদের নিরাপত্তা সব কিছু দেখব বলেই আমাকে ভোট দিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১২ ডিসেম্বর) রাতে বেসরকারি টিভি চ্যানেল ‘ইনডিপেনডেন্ট টেলিভিশন’র এক আলোচনা অনুষ্ঠানে এই কথা বলেন ফরিদপুর-৪ আসনের এই সংসদ সদস্য। আবারও তিনি শাজাহান খানকে নিয়ে ব্যাপক সমালোচনা করলেন।

মজিবুর রহমান নিক্সন চৌধুরী বলেন, শাজাহান খান জাসদের জন্য নিজের বাবার বিরুদ্ধে নির্বাচনী প্রচারণা করেছেন। উনার নির্বাচনী এলাকায় যখন জননেত্রী শেখ হাসিনা একজনকে মনোনীত করলেন, তখন উনি আপন ভাইকে স্বতন্ত্র দাঁড় করিয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান করে নিয়ে আসলেন।

তিনি বলেন, তখন কি উনার নৌকার জন্য দরদ ছিল না? আসলে উনার রাজনৈতিক ব্যাপারে শুধু আমি ভিকটিম না, সারা বাংলাদেশের মানুষ ভিকটিম।

ভাঙ্গা উপজেলা, সদরপুর উপজেলা এবং চরভদ্রাসন উপজেলার ইউনিয়নের সাংসদ নিক্সন আরো বলেন, শাজাহান খানের শরীর থেকে এখনও জাসদের গন্ধ যায়নি। উনি গণবাহিনী করতেন। আমি চ্যালেঞ্জ করলাম উনি গণবাহিনী করতেন। বইয়ে লেখা আছে উনি গণবাহিনীর কমান্ডার ছিলেন।

তিনি বলেন, আমি একজন স্বাধীনতা বিরোধী ব্যক্তির বিপক্ষে ইলেকশন করেছি। দুই দুইবার জনগণ রায় দিয়েছে স্বাধীনতার বিরোধীর বিপক্ষে। আমার পক্ষে রায় দিয়েছে।

সাবেক নৌমন্ত্রীর সম্পদ যাচাই করে দেখার কথা উল্লেখ করে নিক্সন চৌধুরী বলেন, মাদারীপুরে তিনি ১০ তলা বিল্ডিং বানিয়েছেন অনুমতি ছাড়া। আজকে নৌমন্ত্রী হওয়ার পর উনার চাচার ঘরের দাদা কোটি কোটি টাকার মালিক। আজকে ‘সার্বিক’ বাসের মালিক তারা। পেট্রোল পাম্পের মালিক। তার ১০ বছর আগে তাদের কিছু ছিল না।

তিনি আরো বলেন, আজকে তার সম্পত্তি কি হয়েছে! বিদেশে হাসপাতাল বানাচ্ছে কোটি কোটি টাকা দিয়ে। আমার তো মনে হয় তার সম্পত্তি ১০ বছর আগে কি ছিল, এখন কি হয়েছে সেটা দেখা উচিৎ।’

সারাদিন/১৩ডিসেম্বর/টিআর