হবিগঞ্জে প্রেমিককে গাছে বেঁধে স্কুলছাত্রীকে গণধর্ষণ, আটক তিন

হবিগঞ্জ সংবাদদাতাহবিগঞ্জ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১২:৫৪ অপরাহ্ণ, ১২/১২/২০১৯

হবিগঞ্জের চুনারুঘাটে ১০ম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীর প্রেমিককে গাছের সঙ্গে বেঁধে ভয়াবহ নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় তিন জনকে আটক করেছে পুলিশ। তবে ঘটনার পর থেকে নিখোঁজ রয়েছে মেয়েটির প্রেমিক।

আটকরা হলেন- চুনারুঘাট উপজেলার আমতলী গ্রামের আব্দুল হাসিমের ছেলে রুবেল মিয়া (২৪), রহমতাবাদ ষাঁড়ের কোনা গ্রামের মৃত ছিদ্দিক আলীর ছেলে মানিক মিয়া (৩০) ও নরপতি গ্রামের মৃত ওয়াহেদ আলীর ছেলে হারিছ মিয়া (৩৫)।

জানা গেছে, গত বুধবার দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জেলার বাসিন্দা ১০ শ্রেণি পড়ুয়া এক ছাত্রী তার প্রেমিক সাকিমুল হাসান সাকিবের সঙ্গে সাতছড়ি জাতীয় উদ্যানে বেড়াতে যায়। এ সময় বনের মধ্যে থাকা ছয় যুবক সাকিবকে গাছের সঙ্গে বেঁধে মেয়েটিকে ধর্ষণ করে।

কিশোরীর চিৎকারে বনরক্ষীরা এসে তিনজনকে আটক করেন। পরে মেয়েটিকে চুনারুঘাট থানায় হস্তান্তর করা হয়। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সাকিবের খোঁজ পাওয়া যায়নি।

চুনারুঘাট থানার ওসি শেখ মো. নাজমুল হক জানান, সাকিবকে গাছের সঙ্গে বেঁধে পাঁচ যুবক মিলে মেয়েটিকে ধর্ষণ করে। পরে ছেলেটির মোবাইল রেখে তাকে বাসে উঠিয়ে দেয় নির্যাতনকারীরা। জড়িত তিনজকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

সারাদিন/১২ ডিসেম্বর/আর