সরকারী তথ্যে ডেঙ্গুতে মৃতের সংখ্যা ১৩৩

নিজস্ব প্রতিবেদকনিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:৫৮ অপরাহ্ণ, ১০/১২/২০১৯

এই বছরের এপ্রিল থেকে ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব দেখা যায়। সেই প্রাদুর্ভাব এখনও চলছে। আর এটি মহামারীর রূপ ধারণ করে জুলাই, আগস্ট, সেপ্টেম্বর ও অক্টোবরে।

চলতি বছরে বাংলাদেশে লাখ লাখ মানুষ ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়। এর মধ্যে বেসরকারী হিসাবে তিন শতাধিক মানুষের মৃত্যু হয়। যদিও সরকারি হিসাবে এ পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় এক লাখ এবং মৃতের সংখ্যা ১৩৩ জন।

সাধারণত নভেম্বর থেকে ডেঙ্গুর প্রভাব কমে আসার কথা ছিল। তবে ডিসেম্বরেও প্রতিদিন গড়ে প্রায় ৫০ থেকে ৬০ জন রোগী হাসপাতালে ভর্তি হচ্ছে। এভাবে চলতে থাকলে আগামী বছর ডেঙ্গু মৌসুমে এ রোগ আরও ভয়াবহ হতে পারে বলে ভাবছেন সংশ্লিষ্টরা।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপরেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের তথ্যানুযায়ী, এই বছরের ১ জানুয়ারি থেকে ৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত সারা দেশে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছে এক লাখ ৭৪২ জন। এরমধ্যে ছাড়পত্র পেয়েছেন এক লাখ ১৭৭ জন।

বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালে মোট ভর্তি রোগীর সংখ্যা ৩০১ জন। ঢাকার ৪১টি হাসপাতালে বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছে ১৯২ জন আর ঢাকার বাইরে ১০৯ জন।

সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইন্সটিটিউটের (আইইডিসিআর) তথ্যানুসারে, এ বছর ডেঙ্গু সন্দেহে ২৬৪ জনের মৃত্যুর তথ্য পাওয়া গেছে। এরমধ্যে ২১১ জনের মৃত্যুর তথ্য বিশ্লেষণ করে ১৩৩ জনের মৃত্যু ডেঙ্গুজনিত বলে নিশ্চিত করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

সারাদিন/১০ডিসেম্বর/টিআর