বাশেমুরবিপ্রবির ইতিহাস বিভাগ অনুমোদনের দাবিতে জবিতে মানববন্ধন

গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বশেমুরবিপ্রবি) ইতিহাস বিভাগ অনুমোদনের দাবিতে সংহতি প্রকাশ করে মানববন্ধন করেছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) ইতিহাস বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা।

মঙ্গলবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) দুপুর সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহিদ মিনার প্রাঙ্গণে মানবন্ধনের মাধ্যমে সংহতি সমাবেশ করেন ইতিহাস বিভাগের শিক্ষক শিক্ষার্থীরা।

ইতিহাস বিভাগের ৩য় বর্ষের শিক্ষার্থী মো রুবেল মিয়ার সঞ্চালনায় ইতিহাস বিভাগের সহকারি অধ্যাপক আবদুল্লাহ মান্নান হাওলাদার, আফসানা আহমেদ, আবদুস সামাদ ও শহীদ কাদেরী চৌধুরীসহ প্রায় দুই শতাধিক শিক্ষার্থী সংহতি সমাবেশে অংশগ্রহণ করেন।

শহীদ কাদেরী চৌধুরী বলেন, ‘বাশেমুরপ্রবিতে প্রশাসন অনুমতিহীন মোট ৮টি বিভাগ চালু করেছিলেন সেখানে বিভিন্ন সময়ে ৭টি বিভাগের অনুমোদন দেওয়া হলেও একমাত্র দেওয়া হয় নি ইতিহাস বিভাগের। ইউজিসির সাবেক চেয়ারম্যান বলেছেন প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাস বিভাগ বাধ্যতামুলক করা হবে। বাংলা,ইংরেজি বিভাগ চালু থাকলে ইতিহাস বিভাগ কেন নয়?’

প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালে বাশেমুরবিপ্রবির তৎকালীন উপাচার্য অধ্যাপক খন্দকার নাসিরুদ্দিন ইউজিসির অনুমতি না নিয়েই বাশেমুরপ্রবিতে ইতিহাস বিভাগ চালু করেন। যেখানের বর্তমান ছাত্র-ছাত্রীদের সংখ্যা প্রায় ৪১৩ জন। ৭ ফেব্রুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন সেই বিভাগের অনুমোদন না দিয়ে নতুন করে শিক্ষার্থী ভর্তি না করানোর নির্দেশ দেন। তবে আগে থেকে যেসব শিক্ষার্থী ভর্তি রয়েছেন তাদের অনুমোদন দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন কর্তৃপক্ষ কিন্তু ইতিহাস বিভাগটি চালু রাখার ব্যাপারে তাদের অনীহা প্রকাশ করেছেন।

এইদিকে বিভাগটি চালু রাখার দাবিতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাশেমুরবিপ্রবি) প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে অনির্দিষ্টকালের জন্য আন্দোলনে নামেন ইতিহাস বিভাগের শিক্ষার্থীরা পরে বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীরাও তাদের সমর্থন জানিয়ে আন্দোলনে যোগদান করেন।

সারাদিন/১৮ ফেব্রুয়ারি