‘পদ্মা সেতু নির্মাণের টাকা কোথায় যাচ্ছে, তা জনগণের বুঝতে বাকি নেই’

নিজস্ব প্রতিনিধিনিজস্ব প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ৫:৩৮ অপরাহ্ণ, ০১/১২/২০১৯

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নেতা ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন, পদ্মাসেতু মাত্র ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার। কিন্তু ভূপেন হাজারিকা সেতু ৯ দশমিক ৩ কিলোমিটার। সেটা তৈরি হয়েছে মাত্র ১১শ’ কোটি টাকায়। কিন্তু পদ্মাসেতুর নির্মাণ ব্যয় প্রথমে ১০ হাজার কোটি টাকা ধরা হলেও এখন তা ৩০ হাজার কোটি টাকা করা হয়েছে। এই টাকা কোথায় যাচ্ছে তা জনগণের বুঝতে বাকি নেই।

রবিবার (১ ডিসেম্বর) রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে নারী ও শিশু অধিকার ফোরাম আয়োজিত এক সেমিনারে তিনি এসব কথা বলেন।

মান্না বলেছেন, লাখ লাখ শহীদের রক্তের বিনিময়ে যে দেশ স্বাধীন হয়েছে, সে দেশে নারী নির্যাতন হবে, এটা আশা করতে পারি না। কিন্তু দুঃখজনক বিষয়, এখন আমাদের মা-বোনেরা নির্যাতনের শিকার হচ্ছেন।

মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, যে মন্ত্রী বলেন ৩০-৩৪ জনের মৃত্যু বড় কিছু নয়, সেই মন্ত্রী এখনো কীভাবে স্বপদে বহাল আছেন? আসলে সরকার একটির পর একটি ইস্যু তৈরি করছে যেন আমরা কোনো ইস্যুতে সীমাবদ্ধ থাকতে না পারি।

তিনি বলেন, বলা হচ্ছে বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে উঠেছে। পদ্মাসেতুতে একটি করে স্প্যান বসে আর মনে হয় আমরা একটা করে চাঁদ ধরে এনেছি। পদ্মাসেতুর খবর শুনতে শুনতে আমাদের কান ব্যথা, মুখ তিতা আর চোখ অন্ধ হয়ে গেছে।
বিএনপির উদ্দেশে মান্না বলেন, বিএনপি বড় রাজনৈতিক দল। কিন্তু খুন, গুম, হত্যা, নারী নির্যাতন হচ্ছে, এজন্য তারা কী করছে? ট্রাম্প ক্ষমতায় আসার পর যখন নারীদের নিয়ে উল্টাপাল্টা কিছু কথা বলেছিলেন তখন পাঁচ লাখ নারী রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করেছিল। আপনারা পারেন না সব নারী রাস্তায় নেমে একটা মিছিল করতে যে আমরা ইজ্জত চাই, সম্মান চাই।

সরকারের উদ্দেশে ঐক্যফ্রন্ট নেতা বলেন, সবকিছুর একটা সীমা আছে। অত্যাচার করে গায়ের জোরে ক্ষমতায় টিকে থাকারও সীমা আছে। আপনারা সেই সীমা পার করছেন এবং সেটা শেষ পর্যায়ে চলে এসেছে। সব পাল্টে যাচ্ছে, হিসাব বদলে যাচ্ছে।
নারী ও শিশু অধিকার ফোরামের আহ্বায়ক সেলিমা রহমানের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট নিপুণ রায় চৌধুরীর সঞ্চালনায় সেমিনারে আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, ঢাবির সাবেক ভিসি অধ্যাপক এমাজউদ্দিন আহমেদ, জাবির সাবেক অধ্যাপক প্রফেসর দিলারা চৌধুরী, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ফজলুর রহমান প্রমুখ।

সারাদিন/১ডিসেম্বর/টিআর